হারিয়ে যাওয়া কবিতা – রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর

হারিয়ে যাওয়া কবিতা – কবিগুরু “রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর” এর লিখা কবিতা “হারিয়ে যাওয়া “।

 

রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর হারিয়ে যাওয়া কবিতা - রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর

 

রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর  (৭ মে ১৮৬১ – ৭ আগস্ট ১৯৪১; ২৫ বৈশাখ ১২৬৮ – ২২ শ্রাবণ ১৩৪৮ বঙ্গাব্দ) ছিলেন অগ্রণী বাঙালি কবি, ঔপন্যাসিক, সংগীতস্রষ্টা, নাট্যকার, চিত্রকর, ছোটগল্পকার, প্রাবন্ধিক, অভিনেতা, কণ্ঠশিল্পী ও দার্শনিক। তাকে বাংলা ভাষার সর্বশ্রেষ্ঠ সাহিত্যিক মনে করা হয়। রবীন্দ্রনাথকে “গুরুদেব”, “কবিগুরু” ও “বিশ্বকবি” অভিধায় ভূষিত করা হয়। রবীন্দ্রনাথের ৫২টি কাব্যগ্রন্থ, ৩৮টি নাটক,  ১৩টি উপন্যাস ও ৩৬টি প্রবন্ধ ও অন্যান্য গদ্যসংকলনতার জীবদ্দশায় বা মৃত্যুর অব্যবহিত পরে প্রকাশিত হয়।

তার সর্বমোট ৯৫টি ছোটগল্প ও ১৯১৫টি গান যথাক্রমে গল্পগুচ্ছ ও গীতবিতান সংকলনের অন্তর্ভুক্ত হয়েছে। রবীন্দ্রনাথের যাবতীয় প্রকাশিত ও গ্রন্থাকারে অপ্রকাশিত রচনা ৩২ খণ্ডে রবীন্দ্র রচনাবলী নামে প্রকাশিত হয়েছে। রবীন্দ্রনাথের যাবতীয় পত্রসাহিত্য উনিশ খণ্ডে চিঠিপত্র ও চারটি পৃথক গ্রন্থে প্রকাশিত। এছাড়া তিনি প্রায় দুই হাজার ছবি এঁকেছিলেন। রবীন্দ্রনাথের রচনা বিশ্বের বিভিন্ন ভাষায় অনূদিত হয়েছে। ১৯১৩ সালে গীতাঞ্জলি কাব্যগ্রন্থের ইংরেজি অনুবাদের জন্য তিনি এশীয়দের মধ্যে সাহিত্যে প্রথম নোবেল পুরস্কার লাভ করেন।

 

হারিয়ে যাওয়া কবিতা – রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর

 

              ছোট্ট আমার মেয়ে

         সঙ্গিনীদের ডাক শুনতে পেয়ে

     সিঁড়ি দিয়ে নিচের তলায় যাচ্ছিল সে নেমে

         অন্ধকারে ভয়ে ভয়ে থেমে থেমে।

             হাতে ছিল প্রদীপখানি,

     আঁচল দিয়ে আড়াল ক’রে চলছিল সাবধানী।

              আমি ছিলাম ছাতে

         তারায় ভরা চৈত্রমাসের রাতে।

         হঠাৎ মেয়ের কান্না শুনে, উঠে

             দেখতে গেলেম ছুটে।

                 সিঁড়ির মধ্যে যেতে যেতে

         প্রদীপটা তার নিবে গেছে বাতাসেতে।

               শুধাই তারে, “কী হয়েছে, বামী।”

সে কেঁদে কয় নিচে থেকে, “হারিয়ে গেছি আমি।”

              তারায় ভরা চৈত্রমাসের রাতে

                   ফিরে গিয়ে ছাতে

               মনে হল আকাশপানে চেয়ে

আমার বামীর মতোই যেন অমনি কে এক মেয়ে

               নীলাম্বরের আঁচল্‌খানি ঘিরে

   দীপশিখাটি বাঁচিয়ে একা চলছে ধীরে ধীরে।

      নিবত যদি আলো, যদি হঠাৎ যেত থামি

আকাশ ভরে উঠত কেঁদে, “হারিয়ে গেছি আমি।”

 

হারিয়ে যাওয়া কবিতা - রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর

 

হারিয়ে যাওয়া কবিতা আবৃত্তিঃ

 

 

 

আরও দেখুনঃ

Competitive Exams Preparation Gurukul, GOLN Logo [ প্রতিযোগিতামূলক পরীক্ষার প্রস্তুতি গুরুকুল, লোগো ]

মন্তব্য করুন